গোপালগঞ্জে এবার ১২শ মন্ডপে দূর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হবে

গোপালগঞ্জ:
শারদীয় দুর্গোৎসবকে ঘিরে গোপালগঞ্জে শুরু হয়েছে ব্যাপক প্রস্তুতি। এ বছরও গোপালগঞ্জে ১২শ মন্দিরে পূজা অনুষ্ঠিত হবে। করোনার মধ্যেও ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রতিমা শিল্পী ও আয়োজকেরা সেই সাথে পূজা মন্ডপ তৈরী থেকে শুরু করে আনুসাঙ্গিক কাজে ব্যস্ত রয়েছেন আয়োজকেরা।

কাশ ফুল ফোঁটা শরতের শারদীয়া দূর্গোৎসবে ঢাকের বাজনা, উলুধ্বনি ও আরতীতে মুখরিত হবে পাড়া-মহল্লা ও গ্রাম। এ বছর দেবী দূর্গা দোলায় চড়ে পৃথিবীতে আসবেনও যাবেন হাতিতে চড়ে । এবার গোপালগঞ্জ সদর,মুকসুদপুর ,কোটালীপাড়া ,কাশিয়ানী , টুঙ্গিপাড়া ১২শ মন্দিরে পূজা অনুষ্ঠিত হবে। মন্ডপ গুলোতে খড় ও কাঁদা মাটি দিয়ে পরম যতেœ গড়ে উঠেছে প্রতিমা। এদিকে শারদীয় দূর্গা পূজা উপলক্ষে মন্ডপ তৈরী থেকে শুরু করে আনুসাঙ্গিক কাজে ব্যস্ত রয়েছেন আয়োজকেরা। এবার ঢাকা বিভাগের মধ্যে গোপালগঞ্জে সবচেয়ে বেশি শারদীয় দূর্গা পূজা অনুষ্ঠিত হবে। তবে এবার করোনার কারনে সড়কগুলোতে অলোকসজ্জার করবে না পূজা উদ্যাপন পরিষদ।

সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে শান্তিপূর্ণ ভাবে যাতে হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দূর্গা পূঁজা উদ্যাপন করতে পারে এ বিষয় সব ধরনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে । মন্ডপের মধ্যেই পূজা অর্চনা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান , গোপালগঞ্জ পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি ডাঃ অসিত কুমার মল্লিক।

শারদীয় এ দূর্গোৎসব শুধু হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের মধ্যে নয় অন্যান্য ধর্মবলম্বীদের মধ্যেও সৃষ্টি করবে দৃঢ় সম্প্রিতির বন্ধন এমনটাই প্রত্যাশা সকলের।

নোটিশ

অনুমতি ব্যাতিত এই সাইটের কোন লেখা বা ছবি কপি করা নিষেধ, কপি করলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।